,

ভারতের করিমগঞ্জে চোর সন্দেহে তিন বাংলাদেশিকে পিটিয়ে হত্যা: পরিচয় জানা যায়নি

  • ডেস্ক :: সীমান্ত পেরিয়ে ভারতের আসামের করিমগঞ্জ জেলায় ঢুকে পড়া তিন বাংলাদেশিকে গরুচোর সন্দেহে পিটিয়ে হত্যা করেছে স্থানীয়রা। করিমগঞ্জ পুলিশ বলছে, ওই বাংলাদেশিরা শনিবার রাতে বাংলাদেশের সিলেট জেলার সীমান্ত দিয়ে আসামে প্রবেশ করে গরু চুরির চেষ্টার সময় স্থানীয় জনতার পিটুনিতে মারা গেছেন।

এক বিবৃতিতে করিমগঞ্জের পুলিশ সুপার কুমার সঞ্জিত কৃষ্ণ বলেন, জেলার বোগরিজান চা বাগান এলাকায় শনিবার রাতে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা সন্দেহভাজন তিন বাংলাদেশিকে পিটিয়ে হত্যা করেছেন। ওই এলাকাটি পাথরকান্দি পুলিশ স্টেশনের আওতায়।

তিনি বলেন, তদন্তে ওই তিন বাংলাদেশি নাগরিক গরু চুরির উদ্দেশে সীমান্ত পেরিয়ে বোগরিজান এলাকায় প্রবেশ করেছিলেন বলে জানা গেছে।

পুলিশ বলছে, নিহতদের কাছ থেকে খাদ্যসামগ্রী ছাড়াও রশি, বেড়া কাটার যন্ত্র এবং কিছু তার উদ্ধার করা হয়েছে। মরদেহ হস্তান্তরের প্রক্রিয়া এবং তদন্ত কার্যক্রম শুরু হয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

স্থানীয় কর্মকর্তারা বলেন, করিমগঞ্জের ওই অংশের সীমান্তবর্তী অঞ্চলটিতে ঘন বন এবং চা বাগান রয়েছে। পাথরিয়া রিজার্ভ ফরেস্টের কাছের এ এলাকায় হাতির পালের অবাধ চলাচলও আছে।

করিমগঞ্জের বাসিন্দা ইমরান অাহমদ ফোনে জানান, সন্দিহানদের দলে ৭ জন লোক ছিলেন। ৪ জন পালিয়ে অাসেন। নিহতদের সাথে বিস্কুট,তার, রশি ও কাটার ছিল। সম্ভবত তারা জুড়ি সীমান্ত দিয়ে প্রবেশ করেছিল। নিহতদের পরিচয় জানা যায়নি। স্থানীয় বিজিবি ও পুলিশ এ ব্যাপারে অবগত নয় বলে জানা গেছে। জকিগঞ্জ নিউজের কাছে এ সংক্রান্ত একটি ভিডিও পাঠিয়েছেন ওপারের একজন পাঠক।

সূত্র : জনমত ও স্থানীয় বাসিন্দা

     এ জাতীয় আরো খবর